Home / জাতীয় / “রাষ্ট্রপতির ইচ্ছানুযায়ী প্রধান বিচারপতি নিয়োগ”

“রাষ্ট্রপতির ইচ্ছানুযায়ী প্রধান বিচারপতি নিয়োগ”

নিউজ ডেস্ক: প্রধান বিচারপতি হিসেবে সুরেন্দ্র কুমার (এস কে) সিনহার পদত্যাগের পর তাঁর স্থলাভিষিক্ত নিয়োগের এখতিয়ার রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদের। এই নিয়োগের বিষয়ে তিনিই সিদ্ধান্ত নেবেন বলে জানিয়েছেন, আইনমন্ত্রী আনিসুল হক।

আজ বুধবার সকালে রাজধানীর বারিধারায় ‘আর মাদক নয়, এই হোক প্রত্যয়’ স্লোগানে একটি মেডিকেল ক্লিনিক আয়োজিত সংবাদ সম্মেলন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এই তথ্য জানান।

গত ১০ নভেম্বর রাষ্ট্রপতি বরাবর পদত্যাগপত্র জমা দেন প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা। ১৪ নভেম্বর, মঙ্গলবার তা গ্রহণ করেন রাষ্ট্রপতি।

এর একদিন পর আইনমন্ত্রীর উদ্দেশে একজন সাংবাদিক বলেন, বর্তমানে প্রধান বিচারপতি নেই। এটা সংকট সৃষ্টি করবে কি না। জবাবে আইনমন্ত্রী বলেন, এটি কোনো সমস্যা নয়। সংবিধানে প্রধান বিচারপতির অনুপস্থিতিতে বা পদত্যাগ করলে কী হবে বা কে দায়িত্ব পালন করবেন, তা বলা আছে।

মন্ত্রী আরো বলেন, অধঃস্তন আদালতের বিচারকদের শৃঙ্খলাবিধি নিয়ে আগামীকাল বৃহস্পতিবার আপিল বিভাগের বিচারপতিদের সঙ্গে তিনি বৈঠক করবেন।

‘বাংলাদেশের সংবিধান অনুযায়ী, মহামান্য রাষ্ট্রপতি বাংলাদেশের প্রধান বিচারপতি অ্যাপয়েন্ট (নিয়োগ) করেন। তো সেই ক্ষেত্রে উনি কখন, কোথায়, কেমন করে প্রধান বিচারপতি নিয়োগ দেবেন, সেটা আমি বলতে পারি না’, বলেন আইনমন্ত্রী।

‘আমি মনে করি যে, প্রধান বিচারপতির নিয়োগের পরপরই এই আপিল বিভাগে যে বিচারপতির স্বল্পতা আছে, সেটা পূর্ণ করা হবে’, যোগ করেন আনিসুল হক।

Check Also

রাতে জাতিসংঘে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী

নিউজ ডেস্ক : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ শনিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) নিউইয়র্কে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের (ইউএনজিএ) …

%d bloggers like this: