Breaking News
Home / ডাক্তারের চেম্বার / ‘যৌন মিলনে ছড়ায় ডেঙ্গু’ বলছে স্পেন স্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষ

‘যৌন মিলনে ছড়ায় ডেঙ্গু’ বলছে স্পেন স্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষ

নিউজ ডেস্ক: কিছুদিন আগেই বাংলাদেশে মহামারি আকার ধারণ করেছিল ডেঙ্গু। হাসপাতালগুলোতে তিল ধারণের জায়গা ছিল না। বহু রোগীর মৃত্যুও হয়েছে। ডেঙ্গু রোগের কারণ হিসেবে বিশেষজ্ঞরা শুধু এডিস মশার একটি প্রজাতির কথা উল্লেখ করলেও চমকপ্রদ তথ্য আবিষ্কার করেছে স্পেনের স্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষ।

তারা জানায়, যৌন মিলনের ফলেও ডেঙ্গু ছড়াতে পারে। একজন রোগীর ক্ষেত্রে যৌন মিলনে ডেঙ্গু সংক্রমণের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন তারা।

দ্য টেলিগ্রাফের প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, স্পেনের মাদ্রিদ অঞ্চলের জনস্বাস্থ্য বিভাগের কর্মকর্তা সুজানা জিমেনেজ বলেছেন, ‘মাদ্রিদের ৪১ বছর বয়সী এক পুরুষের ক্ষেত্রে যৌন সংসর্গে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হওয়ার প্রমাণ মিলেছে। তিনি তার এক পুরুষ সঙ্গীর সঙ্গে যৌন সম্পর্ক করেছিলেন। তার এই সঙ্গী কিউবা ভ্রমণে গিয়েছিলেন। তিনি তখন মশার কামড়ে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হন। গত সেপ্টেম্বরে ওই ব্যক্তির ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যায়। বিষয়টি চিকিৎসকদের বিস্মিত করে। কারণ, তিনি এমন কোনো দেশ বা এলাকায় যাননি, যেখানে ডেঙ্গুর উপদ্রব রয়েছে। তবু তার শরীরে প্রচণ্ড জ্বর, শরীর ব্যথার মতো নানা উপসর্গ দেখা যায়। তার সঙ্গীরও দিন দশেক আগে একই রকমের উপসর্গ দেখা দিয়েছিল। দুজনের শুক্রাণু পরীক্ষা করে দেখা যায়, তাদের শরীরে ডেঙ্গুর ভাইরাস রয়েছে। আর এই ভাইরাসের উপস্থিতি কিউবাতে রয়েছে।’

এএফপি খবরে বলা হয়, স্টকহোমভিত্তিক ইউরোপিয়ান সেন্টার ফর ডিজিজ প্রিভেনশন অ্যান্ড কন্ট্রোল (ইসিডিসি) র মতে, পুরুষের সঙ্গে পুরুষের শারীরিক সম্পর্কে ডেঙ্গু সংক্রমণের এটিই প্রথম ঘটনা।

ডেঙ্গু জ্বর মূলত এডিস এজিপ্টি মশার কামড়ে হয়। এডিস এজিপ্টি মশা মূলত ট্রপিক্যাল বা সাব ট্রপিক্যাল এলাকায় বসবাস করে। এরা ঘনবসতিপূর্ণ এলাকা পছন্দ করে। গবেষকেরা সতর্ক করে বলেন, আগামী ৬০ বছরের মধ্যে বিশ্বের অধিকাংশ অঞ্চলে ডেঙ্গু ছড়িয়ে পড়বে।

Check Also

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে বিকল্প চিকিৎসা

নিউজ ডেস্কঃ করোনাভাইরাস দিন দিন যেন শক্তিশালী হয়ে উঠছে। ভাইরাসটিকে পরাজিত করতে স্বীকৃত কোনো ওষুধ …

%d bloggers like this: