Home / কৃষকের মাঠ / “ব্রয়লার খামার স্থাপন লাখো বেকারের উন্নয়ন” (পর্ব-১)

“ব্রয়লার খামার স্থাপন লাখো বেকারের উন্নয়ন” (পর্ব-১)

ডাঃ সুদেব সরকার: ক্রমবর্ধমান জনসংখ্যার এই বাংলাদেশে কম খরচে প্রানিজ পুষ্টির উৎস হলো ব্রয়লার জাতের মুরগি। একটা সময় ছিল মানুষ ব্রয়লারের মাংস খেতো না। সময়ের সাথে দিন বদলে গেছে। সাথে বদলেছে লাখো বেকারের জীবন। একজন টেকনিক্যাল পার্সন হিসেবে প্রায় প্রতিদিনই কাউকে না কাউকে পরামর্শ দেই ব্রয়লার খামার স্থাপনের। তবে হুজুগে নয়, বরং একটু জেনেশুনে নামতে হবে এই ব্যবসায়। যে কোনো খামার স্থাপনের জন্য পূর্ব প্রস্তুতির প্রয়োজন হয়।

যেসব গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো খেয়াল রাখা দরকারঃ

1.1 ব্যক্তিগত প্রশিক্ষণ ও অভিজ্ঞতা

ক। ব্রয়লার মুরগী বিষয়ে ধারনা।
খ। খামার স্থাপনের আগ্রহ ও আন্তরিকতা।
গ। প্রযুক্তিগত প্রশিক্ষণ ও অভিজ্ঞতা।
ঘ। খামার পরিচালনার জন্য নিজস্ব দক্ষতা ও আত্মবিশ্বাস।

1.2 সম্পদের প্রাপ্যতা

ক। খামার স্থাপনের জন্য নিজস্ব জমি।
খ। নিজস্ব মূলধন।
গ। মূলধন প্রাপ্তির উৎস।
ঘ। সার্বিক ব্যবস্থাপনার জন্য দক্ষ ও সৎ কর্মী।

1.3 উপকরণ প্রাপ্যতা

ক। ব্রয়লার বাচ্চা প্রাপ্যতা।
খ। ব্রয়লার খাদ্য প্রাপ্যতা।
গ। প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম প্রাপ্যতা।

1.4 বাজারের হালচাল

ক। ব্রয়লার মাংসের স্থানীয় চাহিদা।
খ। স্থানীয়ভাবে ব্রয়লার মাংসের চাহিদা।
গ। স্থানীয় মানুষের ক্রয় ক্ষমতা।
ঘ। বিকল্প বাজার সৃষ্টির সম্ভাবনা।
ঙ। উৎপাদন ও বাজার মূল্যের সামঞ্জস্য।

1.5 সুযোগ সুবিধা

ক। পরামর্শ ও চিকিৎসা সেবা।
খ। যাতায়াত ব্যবস্থা।
গ। স্যানিটেশন ও পরিবেশ।
ঘ। বিদ্যুত ও পানি সরবরাহ ব্যবস্থা।

1.6 স্থান নির্বাচন

ক। উচু ও বর্ষাকালে পানি উঠে না এমন স্থান।
খ। অ-কৃষি জমি।
গ। লোকালয় থেকে দূরে।
ঘ। অন্য খামার ও হ্যাচারি থেকে দূরে।
ঙ। মিল কারখানা থেকে দূরে।

1.7 পরিকল্পনা প্রণয়ন

ক। উল্লিখিত বিষয়গুলো পর্যালোচনা করা।
খ। বাজার সম্পর্কে তথ্য সংগ্রহ।
গ। রেজিস্টার্ড ভেটেরিনারিয়ানের পরামর্শ গ্রহণ।
ঘ। লোন পাওয়া যায় এমন ব্যাংকগুলোতে যোগাযোগ।

1.8 খামার স্থাপনের উদ্দেশ্য

ক। আমিষের ঘাটতি পূরণ।
খ। কর্মসংস্থাান ও আয়ের উৎস সৃষ্টি।
গ। জীবনযাত্রার মান বৃদ্ধি।
ঘ। সামাজিক পরিবর্তন।

1.9 খামারের লক্ষ্যমাত্রা

ক। ব্রয়লার উৎপাদনের সংখ্যা।
খ। ব্রয়লার মাংস উৎপাদনের পরিমাণ।
গ। খাদ্য সংগ্রহের পরিমাণ।
ঘ। লোকবল ও কর্মচারীর সংখ্যা।
ঙ। প্রতি বছর সম্প্রসারনের পরিমাণ।
চ। আয় ব্যয়ের পরিমাণ।

1.10 খামার পরিচালনা পদ্ধতি

ক। পরিচালনা অবকাঠামো।
খ। মনিটরিং ও জবাবদিহিতা।

খামারের লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য ঠিক রেখে সমস্ত হিসাব নিকাশ করেই কেবল এই ব্যবসায় আসা উচিৎ।

“ব্রয়লার খামার স্থাপন লাখো বেকারের উন্নয়ন” (পর্ব-২) পড়তে নিচের লিঙ্কে ক্লিক করুন…..

“ব্রয়লার খামার স্থাপন লাখো বেকারের উন্নয়ন” (পর্ব-২)

ডাঃ সুদেব সরকার
ভেটেরিনারি সার্জন
উপজেলা প্রানিসম্পদ দপ্তর, নাজিরপুর, পিরোজপুর

Check Also

“ব্রয়লার খামার স্থাপন, লাখো বেকারের উন্নয়ন” (পর্ব-৩)

ডাঃ সুদেব সরকার: এর আগে দুই পর্বে বয়লার মুরগীর বিভিন্ন দিক নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে আজকের …

Leave a Reply

Your email address will not be published.