Home / বিনোদন / বলিউড / ‘পদ্মাবতী’ মুক্তি পাবে, যদি…

‘পদ্মাবতী’ মুক্তি পাবে, যদি…

বিনোদন ডেস্ক : চড়াই-উতরাই আর ঝুট-ঝামেলা শেষে এবার বুঝি সঞ্জয় লীলা বানসালির ছবি ‘পদ্মাবতী’ আশার আলো দেখতে পাচ্ছে।

ভারতের সেন্সর বোর্ড অব ফিল্ম সার্টিফিকেশন (সিবিএফসি) বানসালির এই ছবিকে ছাড়পত্র দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তবে কিছু শর্ত মানতে হবে।

এসব শর্ত মানলে তবেই ছবিটিকে ছাড়পত্র দেওয়া হবে বলে জানান সিবিএফসির প্রধান প্রসূন যোশি। গত বৃহস্পতিবার রিভিউ কমিটির মিটিংয়ে সিদ্ধান্ত হয়, ‘পদ্মাবতী’ ছবির ২৬টি দৃশ্য কর্তন করতে হবে।

আর নাম পাল্টে রাখতে হবে ‘পদ্মাবত’। নির্মাতারা এই শর্ত মেনে আবারও ছবিটি বোর্ডে জমা দিলে মিলবে ছাড়পত্র, অন্যথায় নয়।

জয়পুরের রানি পদ্মাবতী বা পদ্মিনীকে নিয়ে লেখা ষোড়শ শতকের কবি মালিক মুহাম্মদ জায়াসির বিখ্যাত কবিতা থেকে অনুপ্রাণিত ছবি ‘পদ্মাবতী’।

এই ছবিকে ঘিরে বিতর্ক অবসানের জন্য ভারতের চলচ্চিত্র সেন্সর বোর্ড কিছুদিন আগে নতুন করে একটি প্যানেল গঠন করে।

ছবিটিকে আংশিক ঐতিহাসিক দাবি করায় সেই প্যানেলে ইতিহাসবিদ ও ভারতের বিভিন্ন রাজপরিবারের সদস্যদের যুক্ত করা হয়। এর মধ্যে ছিলেন ভারতের বর্ষীয়ান ইতিহাসবিদ অধ্যাপক বি এল গুপ্ত ও অধ্যাপক আর এস খাঙ্গারোট।

এদিকে ‘পদ্মাবতী’ ছবি নিয়ে বিতর্ক যখন তুঙ্গে, তখন কয়েকজন ইতিহাসবিদ বলেন, বাস্তবে রানি পদ্মিনী নামে কোনো চরিত্রের অস্তিত্ব নেই। পদ্মাবতী নিছক কবির কল্পনা ছাড়া কিছু নয়।

এতে রাজপুতেরা আরও চটে যান। তবে সিবিএফসি এত দিন অন্য কারণে ‘পদ্মাবতী’র ছাড়পত্র আটকে রাখে। বোর্ডে জমা দেওয়ার সময় ছবির নির্মাতারা কোথাও উল্লেখ করেননি এটি ঐতিহাসিক ছবি, না পুরোটাই কাল্পনিক।

নিয়মবহির্ভূত উপায়ে সিনেমা পেশ করায় তখন ছবির ছাড়পত্র দেওয়া থেকে বিরত থাকে বোর্ড। তা ছাড়া বানসালি ছাড়পত্র পাওয়ার আগেই কয়েকজন সাংবাদিকের জন্য ‘পদ্মাবতী’র বিশেষ প্রদর্শনীর ব্যবস্থা করেন। এতেও নাখোশ হন প্রসূন।

তার ওপর রাজনৈতিক চাপ তো আছেই। ‘পদ্মাবতী’ ছবিতে অভিনয় করেছেন দিপীকা পাড়ুকোন, রণবীর সিং, শহীদ কাপুর, অদিতি রাও হায়দারি প্রমুখ।

Check Also

তামাকের বিরুদ্ধে “সিগারেট”

নাসিফ শুভ: স্লো পয়জন হিসেবে সিগারেট সারা বিশ্বব্যাপী পরিচিত। ধূমপানে একদিকে যেমন নিজের ক্ষতি হয়, …

%d bloggers like this: