Home / বিনোদন / বলিউড / গরুর মাংস খাওয়ায় হেনস্তার শিকার এই অভিনেত্রী

গরুর মাংস খাওয়ায় হেনস্তার শিকার এই অভিনেত্রী

বিনোদন ডেস্ক: গোরক্ষকদের তাণ্ডব নিয়ে মোদি সরকারকে সতর্ক করেছে দেশটির সর্বোচ্চ আদালত সুপ্রিম কোর্ট। গরু নিয়ে আইন-শৃঙ্খলার অবনতি হলে ভারতের রাজ্যগুলির বিরুদ্ধে কী ব্যবস্থা নেওয়া হবে, কেন্দ্রকে তা জানাতে বলেছে শীর্ষ আদালত। পাশাপাশি গোরক্ষার নামে তাণ্ডব রুখতে রাজ্যগুলোকে প্রতিটি জেলায় নোডাল অফিসার নিয়োগ করার নির্দেশও দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। এই প্রেক্ষাপটেই এবার কেরলে গরুর মাংস খাওয়ায় সোশাল মিডিয়ার হেনস্তার মুখে পড়লেন জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত মালয়ালম অভিনেত্রী সুরভী লক্ষ্মী।

দেশে বেআইনি গো-হত্যা রুখতে পশুহাট বা পশুবাজারগুলোতে গবাদি পশু বিক্রিতে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে মোদি সরকার। কিন্তু বাস্তবে তা বুমেরাং হয়ে গিয়েছে। দেশের নানা প্রান্তে স্বঘোষিত গোরক্ষকদের তাণ্ডবে হেনস্তার মুখে পড়ছেন নিরীহ, সাধারণ মানুষ। এবার রেহাই পেলেন না জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত মালয়ালম অভিনেত্রী সুরভী লক্ষ্মীও। প্রকাশ্যে গরুর মাংস খাওয়ায় সোশাল মিডিয়ায় তাঁকে রীতিমতো হেনস্তা করল স্বঘোষিত গোরক্ষকরা।

কেরলে এখন ওনাম উৎসব চলছে। সেই উপলক্ষে তিরুঅনন্তপুরমে স্থানীয় একটি মালয়ালম চ্যানেল একটি বিশেষ অনুষ্ঠান সম্প্রচারিত হয়। অনুষ্ঠানে হাজির ছিলেন অভিনেত্রী সুরভী লক্ষ্মী। সেই অনুষ্ঠানে ‘ওনাম ফেস্ট’-এর অংশ হিসেবে গরুর মাংস খেতে দেখা গিয়েছে অভিনেত্রীকে। পরে সোশাল মিডিয়ায় সেই ছবি পোস্টও করেন তিনি। এ ঘটনায় বেজায় চটেছে স্বঘোষিত গোরক্ষকরা। সোশাল মিডিয়ায় অভিনেত্রীকে উদ্দেশ্য করে একের পর এক আপত্তিকর পোস্ট করতে শুরু করে তাঁরা।

বস্তুত, শুধুমাত্র অভিনেত্রী সুরভী লক্ষ্মীকেই নয় ধর্মীয় ভাবাবেগে আঘাত করার অভিযোগ তুলে সোশাল মিডিয়া সংশ্লিষ্ট মালয়ালম চ্যানেলের কর্তৃপক্ষকেও আক্রমণ করেছে স্বঘোষিত গোরক্ষকরা।

প্রসঙ্গত, কেরলের সবচেয়ে বড় উৎসব ওনাম। দক্ষিণের এই রাজ্যে ১০ দিন ধরে এই উৎসব পালিত হয়। ‘ওনাম ফেস্ট’-এ নিরামিষ খাবার খান দক্ষিণ কেরলের বাসিন্দারা। তবে উত্তর কেরলে গরুর মাংসসহ বিভিন্ন আমিষ পদ খাওয়ার রেওয়াজ দীর্ঘদিনের। সূত্র : সংবাদ প্রতিদিন

Check Also

তামাকের বিরুদ্ধে “সিগারেট”

নাসিফ শুভ: স্লো পয়জন হিসেবে সিগারেট সারা বিশ্বব্যাপী পরিচিত। ধূমপানে একদিকে যেমন নিজের ক্ষতি হয়, …

%d bloggers like this: