Home / জাতীয় / ইমরানের বিরুদ্ধে আবারো গ্রেপ্তারি পরোয়ানা

ইমরানের বিরুদ্ধে আবারো গ্রেপ্তারি পরোয়ানা

নিউজ ডেস্ক:  সুপ্রিম কোর্ট প্রাঙ্গণ থেকে ভাস্কর্য অপসারণের প্রতিবাদে আয়োজিত মিছিল থেকে প্রধানমন্ত্রীকে কটূক্তির অভিযোগে দায়ের করা মানহানির মামলায় গণজাগরণ মঞ্চের মুখপাত্র ইমরান এইচ সরকারের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করা হয়েছে। এ মামলায় এ নিয়ে তার বিরুদ্ধে দ্বিতীয় দফায় পরোয়ানা জারি করা হলো।

আজ বৃহস্পতিবার ঢাকার প্রথম অতিরিক্ত মুখ্য মহানগর হাকিম শেখ ছামিদুল ইসলাম এই পরোয়ানা জারি করেন। একই সঙ্গে পরোয়ানা তামিলসংক্রান্ত প্রতিবেদন দাখিলের জন্য আগামী ৪ জানুয়ারি পরবর্তী তারিখ ধার্য করেন তিনি।

আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে সহকারী পিপি আলাউদ্দিন খাঁন জানান, মামলায় আসামিদের বিরুদ্ধে চার্জ গঠনের জন্য দিন ধার্য ছিল। এ সময় বাদী আদালতে উপস্থিত ছিলেন। মামলার দুই আসামির মধ্যে সনাতন উল্লাস আদালতে হাজির থাকলেও ইমরান অনুপস্থিত ছিলেন। তার পক্ষে সময়ের আবেদন করা হয়। বিচারক তা নামঞ্জুর করে পরোয়ানা জারি করেন।

আলাউদ্দিন খাঁন আরো বলেন, আদালতে ধার্য তারিখে তিনি আসেন না। ওয়ারেন্ট হলে পরের দিন জামিন নেন।
মামলার ধার্য আগের তারিখেও তার বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করা হয়েছিল। পরের দিন তিনি আত্মসমর্পণ করে জামিন নেন।

ইমরানের পক্ষে সময় চেয়ে আদালতে আবেদন করেন তার আইনজীবী প্রকাশ বিশ্বাস। তিনি বলেন, ‘মানহানির অভিযোগে দায়ের হওয়া মামলায় আসামির পক্ষে সময়ের আবেদন করা হয়েছিল। সঙ্গত কারণেই সে সময় পাওয়ার হ্কদার। কিন্তু আবেদনটি নাকচ করেছেন বিচারক।’

নথি সূত্রে দেখা গেছে, মামলাটি বিচারের জন্য বদলি হয়ে এ আদালতে আসার পর গত ২০ সেপ্টেম্বর মামলায় চার্জ গঠনের জন্য প্রথম ধার্য তারিখে দুই আসামি বিনা পদক্ষেপে গড়হাজির থাকায় গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করা হয়। পরদিন তারা আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন নেন।

ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় শিক্ষা ও পাঠচক্রবিষয়ক সম্পাদক গোলাম রব্বানী গত ৩১ মে দণ্ডবিধির ৫০০ ধারায় ইমরান ও সনাতনকে আসামি করে আদালতে পিটিশন মামলা করেন।

মামলার আরজি থেকে জানা যায়, গত ২৮ মে রাজধানীতে মশাল মিছিল থেকে প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে কটূক্তি করা হয়, তাতে বাংলাদেশের নাগরিক হিসেবে তিনি ক্ষুব্ধ, অপমানিত হয়েছেন। গণজাগরণ মঞ্চের ওই মিছিল থেকে শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে স্লোগান ওঠার পর ইমরানকে পেটানোর হুমকিও দিয়েছিলেন ছাত্রলীগ নেতা গোলাম রব্বানী। পরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে কয়েকজন ছাত্রলীগ নেতার উদ্যোগে একটি মিছিলপরবর্তী সমাবেশ থেকে ইমরান এইচ সরকারকে শাহবাগে অবাঞ্চিতও ঘোষণা করা হয়।

গণজাগরণ মঞ্চের মুখপাত্র ইমরান ছাত্রলীগেরই রংপুর মেডিক্যাল কলেজ শাখার আহ্বায়ক কমিটির সদস্য ছিলেন। তিনি বর্তমান সরকারের শিক্ষামন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য নুরুল ইসলাম নাহিদের জামাতা। যুদ্ধাপরাধীদের সর্বোচ্চ শাস্তির দাবিতে ২০১৩ সালে শাহবাগে গণজাগরণের আন্দোলনের সূচনায় অনলাইন অ্যাক্টিভিস্ট হিসেবে এর আহ্বায়কের দায়িত্ব নেন ইমরান।

Check Also

রাতে জাতিসংঘে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী

নিউজ ডেস্ক : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ শনিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) নিউইয়র্কে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের (ইউএনজিএ) …

%d bloggers like this: