Breaking News
Home / আর্ন্তজাতিক / আয়ারল্যান্ড লকডাউন

আয়ারল্যান্ড লকডাউন

নিউজ ডেস্ক: মহামারি করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে লকডাউনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে আয়ারল্যান্ড সরকার। স্থানীয় সময় শুক্রবার সন্ধ্যায় দুই সপ্তাহের জন্য আয়ারল্যান্ডকে লকডাউন ঘোষণা করেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী লিও ভারাদকার

লকডাউন ঘোষণা করে তিনি বলেন, ‘আজ মধ্যরাত থেকেই দুই সপ্তাহের জন্য আয়ারল্যান্ড লকডাউন থাকবে। যা চলবে ১২ এপ্রিল পর্যন্ত। উদ্ভুত পরিস্থিতিতে এই সময়ে অবশ্যই সবাইকে বাসায় থাকতে হবে।’

তবে যারা জরুরি প্রয়োজনে কাজ করবেন, বিশেষ করে স্বাস্থসেবা ও সামাজিক সেবা খাতে যারা কাজ করেন তারা কাজ করার ও বাইরে বের হওয়ার অনুমতি পাবেন। নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য, ঔষুধ, ডাক্তারি প্রয়োজন, ব্যক্তিগত ব্যায়াম, জরুরি পারিবারিক প্রয়োজনে বের হওয়া যাবে।

তবে শনিবার থেকে কয়েদী ও হাসপাতালে কারো সঙ্গে দেখা করা যাবে না। গণপরিবহন সীমিত করা হবে। কেবল জরুরি প্রয়োজনে যারা বাইরে বের হওয়া লোকজন সেটা ব্যবহার করতে পারবেন।

গেল সোমবার থেকে আয়ারল্যান্ডে কোভিড-১৯ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রতিদিন প্রায় দ্বিগুণ মানুষ আইসিইউতে ভর্তি হচ্ছে। বর্তমানে দেশটিতে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ২ হাজার ১২১ জন। নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে ৩০২ জন। এ পর্যন্ত মারা গেছে ২২ জন। শুক্রবার মারা গেছে ৩ জন।

লিও ভারাদকার বলেছেন, ‘আমাদের দেশে করোনার চ্যালেঞ্জ বাড়ছে। আশা করছি এই চ্যালেঞ্জে আমরাই জিতবো। আমরা কারাবাসী নই। ভবিষ্যতে এই ভাইরাসে কি হতে পারে সেটা আমরা রুখে দিতে পারি। আমরা ও আমাদের দেশ স্বাধীনতাপ্রিয়। কিন্তু যখন সাময়িক সময়ের জন্য সবাইকে গৃহবন্দি করতে হয়, তখন স্বাধীনতার বিষয়টি ঠাট্টায় পরিণত হয়।’

‘তবে স্বাধীনতা কোনো বিমূর্ত ধারনা নয়। প্রতিদিন আমরা এটার ভিন্ন ভিন্ন রূপ দেখি। আমরা এমন একটি সিদ্ধান্ত নিয়েছি আমাদের প্রিয়জন ও সহকর্মীদের রক্ষার জন্য। আশা করছি নিষেধাজ্ঞাগুলো মানার ক্ষেত্রে আপনারা আমাদের স্বাধীনতাকে তাৎপর্যপূর্ণ করবেন।’ যোগ করেন তিনি।

 

Check Also

কিছু মানুষ কখনোই করোনায় আক্রান্ত হবেন না!

নিউজ ডেস্ক: পৃথিবীর সমস্ত মানুষের শরীরে সংক্রমণ ঘটানোর সক্ষমতা নেই করোনাভাইরাসের। সম্প্রতি এক নতুন গবেষণা …

%d bloggers like this: