Home / দেশজুড়ে / অতিরিক্ত মূল্যে লবণ বিক্রি : ৪ ব্যবসায়ীকে কারাদন্ড, ১৩ প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা

অতিরিক্ত মূল্যে লবণ বিক্রি : ৪ ব্যবসায়ীকে কারাদন্ড, ১৩ প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা

নিউজ ডেস্ক: হবিগঞ্জে অতিরিক্ত মূল্যে লবণ বিক্রির অপরাধে জেলার বিভিন্ন স্থানে চার ব্যবসায়ীকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদন্ড ও ১৩ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা করা হয়েছে।
হবিগঞ্জে কৃত্রিম লবনের সংকট ঠেকাতে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটরা সোমবার রাত থেকেই বাজারে বাজারে অভিযানে নেমেছেন । মঙ্গলবার বিকেল পর্যন্ত এসব অভিযান চলে । এ সময় অতিরিক্ত মূল্যে লবন বিক্রির অপরাধে বেশ কিছু ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা করা হয়। বিভিন্ন স্থান থেকে মজুদ করা লবন জব্দ করা হয় ।
সোমবার সন্ধ্যায় হঠাৎ লবনের মূল্য বৃদ্ধির গুজব ছড়িয়ে পড়ে হবিগঞ্জ জেলা জুড়ে। রাত ১টার দিকে মজুদ করা ২০ বস্তা লবন জব্দ ও ৪ ব্যবসায়ীকে আটক করে গোয়েন্দা সংস্থা। পরে জেলা প্রশাসন ও ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আধিদপ্তর তাদেরকে জেল-জরিমানা করে। মঙ্গলবার ভোক্তা সংরক্ষণ অধিদপ্তর বাহুবলের তিনজন ও হবিগঞ্জ শহরের এক ব্যবসায়ীকে ১২ হাজার টাকা করে জরিমানা করে।
হবিগঞ্জের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আফিয়া আমিন অভিযানে হবিগঞ্জ শহরের আরও দুই ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে দুই হাজার টাকা করে জরিমানা করেন।
এদিকে হবিগঞ্জের মাধবপুরে অতিরিক্ত মূল্যে লবন বিক্রির দায়ে ৮ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে ৫১ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তাসনুভা নাশতারান। উপজেলা সদর, ধর্মঘর, চৌমুহনীসহ বিভিন্ন বাজার তদারকি করেন তিনি।
একরাতেই হবিগঞ্জ জেলার বিভিন্ন স্থানে সাধারণ ক্রেতাদের কাছ থেকে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন কিছু অসাধু ব্যবসায়ি। ১২০ টাকা কেজিতেও অনেক জায়গায় লবন বিক্রি হয়েছে বলে জানা গেছে।
জেলার লাখাই উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোসা. শাহীনা আক্তার জানান, উপজেলার সবক’টি বাজারে অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে। এ সময় কয়েকজন ব্যবসায়ির নিকট থেকে ৮ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়। পাশাপাশি লবন ক্রেতাদের নিকট থেকে নেয়া অতিরিক্ত মূল্য ফিরিয়ে দেয়া হয়েছে।
নবীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) তৌহিদ বিন হাসান জানান, কোথাও ১২০ টাকা করে লবন বিক্রি হয়েছে বলে খবর এসেছে। উপজেলা প্রশাসন আভিযানে নেমেছে। লবন মজুদ অথবা অতিরিক্ত মূল্যে বিক্রির প্রমাণ পেলেই কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
চুনারুঘাট উপজেলার ভারপ্রাপ্ত নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নুসরাত ফাতিমা শশী বলেন, এ ব্যাপারে আমরা সতর্ক রয়েছি। বিভিন্ন স্থানে মাইকিংও করা হয়েছে। মুজদের চেষ্টাকালে পিকআপ ও টমটম ভর্তি প্রায় ৫০০ কেজি লবন জব্দ করেছে চুনারুঘাট থানা পুলিশ। তবে অভিযানকালে মজুদদাররা পালিয়ে যায়।

Check Also

করোনা আক্রান্ত সাংবাদিকের পাশে বনেক সভাপতি

ম‌মিনুল ইসলাম ম‌মিন: ময়মনসিংহের ত্রিশালে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হোম কোয়া‌রেন্টাই‌নে ত্রিশাল রি‌পোর্টার্স ক্লা‌বের সভাপ‌তি, দৈ‌নিক …

%d bloggers like this: